সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০১:৫৪ অপরাহ্ন

পুতুল আর চকলেটের বায়না আর করবে না শিশু তোবা !

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

মো.সাদ্দাম হোসেন, সুন্দর এই পৃথিবীতে বেড়ে উঠা হলো না আর তোবার। বাবা কাছে  বিদেশ থেকে পুতুল আর চকলেট, মায়ের কাছে লাল জামা কিনে দেওয়ার বায়নাও আর কোন দিন করবে না শিশু তোবা । মরনব্যাধী ক্যান্সারের  সাথে যুদ্ধ করে না ফেরার দেশে চলে গেলেন সদ্য স্কুলে ভর্তি হওয়া সাড়ে ৫ বছরের শিশু সাবিহা ভূঁইয়া তোবা। একমাত্র মেয়েকে হাড়িয়ে বাকরুদ্ধ হয়ে গেছেন বাবা-মা।

জানা গেছে, আখাউড়া উপজেলার উত্তর ইউনিয়নের আমোদাবাদ গ্রামের হংকং প্রবাসী সোহেল ভূঁইয়ার সাড়ে ৫ বছরের একমাত্র  শিশু কন্যা সাবিহা ভূঁইয়া তোবা মরনব্যাধী ক্যান্সারে আক্রান্ত  হন। ব্লাড ক্যান্সার আক্রান্ত হয়েও হাঁসপাতালের বেডে  বাঁচার স্বপ্ন দেখেছিলেন শিশু তোবা, কিন্ত তোবার বাঁচার সেই স্বপ্নটা আর হয়ে উঠা হলো না। দীর্ঘ ৪৫ দিন মরনব্যাধী ক্যান্সারের  সাথে যুদ্ধ করে অবশেষে আজ বৃহস্প্রতিবার সকালে না ফেরার দেশে চলে যায় তোবা।আমোদাবাদ হলি চাইল্ড কিন্ডার গার্টেন স্কুলে প্লে শ্রেনীতে অধ্যায়ণরত ছিল তোবা । তোবার বাবা হংকং প্রবাসী সোহেল ভূঁইয়া জানান, দুই মাস আগে তাঁর মেয়ের ব্লাড ক্যান্সার ধরা পরে । ডাক্তারের পরামর্শে মেয়ে কে কেমু থেরাপি দেওয়া হয়েছিল। আবেগ আপ্লুত হয়ে সোহেল বলেন, প্রবাস থেকে ভিডিও কলে কথা বলার সময় মেয়ে প্রায়ই তাকে পুতুল আর চকলেট আনার বায়না করত। এদিকে তোবার অকাল মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে ।তোবাকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ ম্যাধ্যমেও তাঁর আত্নীয় স্বজন আবেগগণ স্ট্যাটাস দিচ্ছেন। আজ বৃহস্প্রতিবার দুপুরে জানাজা শেষে তাদের পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয় তোবাকে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..

পেছনের বিজ্ঞাপন-